জুয়া নিয়ে মহা বিপদে কোহলি

সংবাদ জমিন, অনলাইন ডেস্ক ঃঃ

ভারতের ক্রিকেট দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি সমস্যায় জড়িয়ে গেলেন বলেই মনে হচ্ছে। আর এ সমস্যা অনলাইন জুয়ায় তার সমর্থন নিয়ে। অনলাইন জুয়া বন্ধে মাদ্রাজ হাইকোর্টে আবেদন করেছেন চেন্নাইয়ের এক আইনজীবী। আবেদনে অনলাইন জুয়ার সাইট যারা চালায় আর যেসব ব্যক্তিরা এর পক্ষে কথা বলে তাদের গ্রেফতার ও বিচারও চেয়েছেন তিনি। আগামী সপ্তাহের এ আবেদনের ওপর শুনানি হতে পারে। সংবাদ মাধ্যম ডিএনএ-তে এ নিয়ে প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছে। আবেদনে আইনজীবী সুরিয়াপ্রাকাসাম বলেন, ‘ভারতীয় আইনে জুয়া নিষিদ্ধ। তার ওপর জুয়ায় সর্বস্বান্ত হয়ে তামিলনাড়ুতে আত্মহত্যাও বেড়ে গেছে অনেক।’ আয়োজকেরা জুয়ায় আকৃষ্ট করেতে বিশাল বিশাল বোনাস অফার ঘোষণা করে থাকেন। প্রলোভনে পড়ে এতে আসক্ত হয়ে পড়ছে তরুণরা।

সুরিয়াপ্রাকাসাম বলেন, ‘শুধু তাই নয়, অনলাইন জুয়ার প্রসার বাড়াতে কোহলির মতো ক্রিকেটার ও তামান্নার মতো অভিনেত্রীদের ব্যবহার করা হচ্ছে। তারা তাদের মোহনীয় ক্ষমতা দিয়ে এই তরুণদের মগজধোলাই করে চলেছেন।’ তিনি বলেন, যে কোনো ধরনের জুয়া ভারতীয় সংবিধানের ২১ অনুচ্ছেদের পরিপন্থি। এবং এটা নাগিরক অধিকারের লঙ্ঘন। তাই আদালতে জুয়া নিষিদ্ধ করার আবেদন করা হয়েছে। এ বিষয়ে সংবাদ মাধ্যম উইঅনকে আইনজীবী বলেন, সিগারেট ও মদে যে ক্ষতি ১৫ বছরে হয়, অনলাইন জুয়ায় তা হয় মুহূর্তের মধ্যে। এর দিকে টানতে তারকাদের ব্যবহার করা হচ্ছে, যারা তাদের গ্রহণযোগ্যতাকে কাজে লাগাচ্ছেন মানুষকে প্রভাবিত করতে। তিনি বলেন, ‘তরুণরা প্রথমে পকেটের টাকা নিয়ে খেলতে নামে। তারপর তাদের আয় শেষ করে। এরপর পরিবারকে সর্বস্বান্ত করে। তারপর করে ধার। পাওনাদাররা যখন টাকার জন্য বাড়িতে যেতে শুরু করে, তখন তারা বিব্রত হয়, পরে চূড়ান্ত কিছু ঘটিয়ে ফেলে।’

তিনি আরো বলেন, এরকম অনেক ঘটনা হয়েছে সাম্প্রতিক সময়ে। ব্যবস্থা না নিলে ভবিষ্যতে এ ধরনের খবর আরো শুনতে হবে বলেও আশঙ্কা প্রকাশ করেন তিনি।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published.

শিরোনাম