সিংগাইরে জামির্ত্তার ডাউটিয়া বাজারে সরকারি রাস্তা দখল করে পাকাস্থপনা নির্মাণ

আবু সায়েম ঃঃ

মানিকগঞ্জের সিংগাইরে জামির্ত্তা ইউনিয়নের ডাউটিয়া বাজারে সরকারি রাস্তার বেশির ভাগ দখল করে দোকান ও মার্কেট নির্মান করেছেন স্থানীয় কয়েকজন প্রভাবশালী।

 

জানা যায়, ডাউটিয়া বাজার থেকে পানিশাইল এস খান উচ্চ বিদ্যালয়ে এ রাস্তা দিয়ে শিক্ষার্থীসহ প্রতিদিন বিভিন্ন শ্রেণীর প্রায়২০০০/৩০০০ হাজার মানুষ যাতায়াত করেন।ক্লাস চলাকালীন সময়ে এ রাস্তাটিই স্কুলগামী ছাত্রছাত্রীদের যাতায়াতাদের একমাত্রা ভরসা।  ডাউটিয়া বাজারসংলগ্গ স্থানে বেহাল এ সরকারি রাস্তাটি প্রায় ৪৪ ফুট চওড়া হলেও সরেজমিনে বর্তমানে ১৮থেকে ২০ ফুটের বেশি হবে না।রাস্তাটির পূর্বপাশের কালাবগা মৌজায় বেশির ভাগ রাস্তা দখল করে বেশ কয়েকটি দোকানসহ প্রাচীর নির্মাণ করেছেন স্থানীয় প্রভাবশালী জুবায়দা আক্তার ওরফে জোবেদা। এর উত্তারাংশে দোতলা বিন্ডিং এর সামনের অংশে প্রায় ১০ফুট জায়গা দখল করে ইতিমধ্যেই সেফটি ট্যাংক এবং পাকা প্রাচীরও নির্মাণ করেছেন তিনি।

 

জানতে চাইলে জোবেদা আক্তার বলেন,কাজ করার সময় স্থানীয় চেয়ারম্যান এবং ভূমি অফিসের নায়েব আজহারুল ইসলাম ও সহকারি কামরুল হাসান এসেছিলেন। বাড়ির পাশে পড়ে থাকা জায়গা তো আর অন্য মানুষ এসে খাবে না?তাদের কাছ থেকে অনুমতি নিয়েই এসব করা হয়েছে।সরকার চাইলে যখন খুশি তখন নিয়ে যাবে। এসব করার জন্য অনুমতির লিখিত কোন কাগজপত্র আছে কিনা এবং সরকারি জায়গা পাকা অবকাঠমো নির্মান করা যায় কিনা এই প্রশ্ন করা হলে তিনি কোন সদুত্তর দিতে পারেন নি।

 

পশ্চিম পার্শ্বে ডাউটিয়া মৌজায় রাস্তার প্রায় ৭/৮ফুট জায়গা দখল করে আঃ রাজ্জাক মাস্টার,মোঃসুজন মিয়া এবং ডাঃআবু বক্কর তিনটি দোকান নির্মাণ করেছেন। এ বিষয়ে স্থানীয় চেয়ারম্যান আব্দুল হালিম রাজুর সাথে কথা বলার চেষ্টা করলে, তিনি ব্যস্ত থাকায় ওনার বক্তব্য নেয়া সম্ভব হয়নি।

 

এলাকাবাসী অনেকেই জানায়,এসব করার সময়ে এলাকার অনেকেই নিষেধ করলেও দখলদার মহিলা প্রভাবশালী হওয়ায় কেউ টিকতে পারেনি।কর্মকর্তাগণ এসে কার্যকরী কোন ব্যবস্থা না নিয়ে লোক দেখানো ভাবে কিছু করে চলে গেছে। তাছাড়া টাকা পয়সার বিনিময়ে স্থানীয় ভূমি অফিস এবং অন্যান্যদের যোগসাজশে এসব হয়েছে বলেও তারা স্বীকার করেন। এ ব্যাপারে জামির্ত্তা ভূমি অফিসের ভারপ্রাপ্ত নায়েব মো কামরুল হাসানকে বার বার ফোন করলেও তিনি রিসিভ করেন নি।

মন্তব্য করুন

Your email address will not be published.

শিরোনাম